মুসলিম ক্রিকেটারকে বিয়ে করতে ধর্ম ত্যাগ

ক্রিকেট

কথায় বলে, ভালোবাসার জন্য সব কবুল। কিন্তু ভালোবেসে বিয়ের পথে যদি বাধা হয়ে দাঁড়ায় ধর্ম? তাহলে নিজের জন্মগত ধর্মও বিসর্জন দিতে প্রস্তুত থাকেন কেউ কেউ। এমন নজিরই উপস্থাপন করলেন র‍্যাচেল ম্যাকলেলান। অস্ট্রেলিয়ার তারকা ক্রিকেটার উসমান খাজাকে বিয়ে করতে ধর্মান্তরিত হয়ে মুসলিম হন তিনি।

ক্রিকেট অস্ট্রেলিয়ার প্রথম মুসলিম ক্রিকেটার উসমান খাজা। তার সঙ্গে প্রেমের সম্পর্কে জড়ানোর পরই জন্মগত ক্যাথলিক ধর্ম ছেড়ে মুসলিম হন র‍্যাচেল। উসমান খাজার সঙ্গে গাঁটছাড়াও বাঁধেন গত বছর। সম্প্রতি সারলেন বিয়ের আনুষ্ঠাকিতাও। তার জের ধরেই নতুন করে সংবাদ শিরোনামে এই জুটি।

২২ বছরের র‍্যাচেল তাদের বিয়ের সম্পর্কে বলেন, ‘উসমানের সঙ্গে পরিচয় হওয়ার আগে আমার ইসলাম সম্পর্কে ভুল ধারণা ছিল। কিন্তু উসমানের সঙ্গে পরিচয় হওয়ার পর আমার এই ধারণাগুলো বদলে যেতে থাকে। একসময় নিজেই সিদ্ধান্ত নেই ইসলাম ধর্ম গ্রহণ করার। তারপর গত বছর আনুষ্ঠানিকভাবে ইসলাম ধর্ম গ্রহণ করি।’

ধর্ম নিয়ে উসমান খাজার পরিবার ম্যাকলেলানকে কোনো চাপ দেয়নি। তিনি নিজেই ইসলামের বিষয়ে আগ্রহী হন। তিনি বলেন, ‘উসমান কিংবা তার পরিবার আমাকে ইসলাম গ্রহণের জন্য কোনো চাপ দেয়নি। তবে আমি শুধু জানতাম, এটা (ইসলাম) তার জন্য অনেক গুরুত্বপূর্ণ।’

স্ত্রীর ইসলাম গ্রহণ করা নিয়ে ৩১ বছর বয়সী উসমান খাজা বলেন, ‘আমি তাকে মুসলিম হতে কখনো চাপ দিইনি। আমি শুধু তাকে বলেছিলাম, সে যদি মুসলিম হয়, তবে আমার পূর্ণ সমর্থন থাকবে। তবে চাপ দিয়ে নয়। যদি মন থেকে কোনো কাজের জন্য সায় না আসে, তবে সে কাজ করার কোনো যৌক্তিকতা নেই।’

উসমান খাজা ১৯৮৬ সালের ১৮ ডিসেম্বর পাকিস্তানের ইসলামাবাদে জন্মগ্রহণ করেন। তিনি ২০০৫ সালে অস্ট্রেলীয় অনুর্দ্ধ-১৯ চ্যাম্পিয়নশিপে অসাধারণ নৈপূণ্য প্রদর্শনের জন্য পুরষ্কারপ্রাপ্ত একজন খেলোয়াড়। এছাড়াও তিনি শ্রীলঙ্কায় অনুষ্ঠিতব্য ২০০৬ সালের অনুর্দ্ধ-১৯ বিশ্বকাপ ক্রিকেটে অস্ট্রেলীয় উদ্বোধনী ব্যাটসম্যান হিসেবে খেলেছেন।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *